১৮ এপ্রিল, ২০২৪
৫ বৈশাখ, ১৪৩১

১০ পিস সোনার বার নিয়ে ভারত যাচ্ছিলেন ডাচ বাংলা ব্যাংকের এজেন্ট

হাকিমপুর (দিনাজপুর) প্রতিনিধি : দিনাজপুরের হিলি সীমান্ত দিয়ে ভারতে পাচারের সময় ১০ পিস সোনার বার ও মোটরসাইকেলসহ মেহেদী হাসান (৩৪) নামের এক ব্যাংকের এজেন্টকে আটক করেছে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি)।

মঙ্গলবার (৫ মার্চ) সকাল সাড়ে ১০টায় হিলি সীমান্তের সাতকুড়ি রেলগেট এলাকা থেকে তাকে আটক করা হয়। মেহেদী হাসান হিলির উত্তরবাসুদেবপুর গ্রামের আবু তোরাবের ছেলে। হিলি স্থলবন্দরের চারমাথা মোড়ে ডাচ বাংলা ব্যাংকের এজেন্ট ব্যাংক পরিচালনা করেন তিনি।

বিজিবি জানায়, ভারতে পাচারের জন্য মোটরসাইকেলে করে সোনার বার নিয়ে এক চোরাকারবারি সীমান্তের দিকে যাচ্ছে এমন গোপন সংবাদ পায় বিজিবির মোংলা ক্যাম্প। সেই সংবাদের ভিত্তিতে বিজিবির নায়েব সুবেদার নুরুল আমিনের নেতৃত্বে বিজিবির বিশেষ টহল দল সীমান্তের সাতকুড়ি রেলগেট এলাকায় অবস্থান নেয়। সন্দেহভাজন মোটরসাইকেলটি এলে তাকে থামার সংকেত দেয় বিজিবি। পালানোর চেষ্টা করলে ধাওয়া দিয়ে আটক করে ক্যাম্পে নিয়ে আসা হয়। সেখানে মোটরসাইকেল ও তার শরীরে তল্লাশি চালিয়ে বিশেষ কায়দায় লুকিয়ে রাখা ১০ পিস সোনার বার উদ্ধার করা হয়।

পরে তাকে জয়পুরহাট ২০ বিজিবি ব্যাটালিয়ন সদর দফতরে নেওয়া হয়। তার কাছে আরও সোনার বার রয়েছে কিনা এবং উদ্ধার বারের ওজন যাচাই-বাছাই করা হচ্ছে।

বিজিবির দিনাজপুর সেক্টর কমান্ডার কর্নেল রাশেদ আসগর বলেন, ‘হিলি সীমান্ত এলাকা থেকে ১০ পিস সোনার বারসহ এক ব্যক্তিকে আটক করা হয়েছে। এ বিষয়ে বিস্তারিত পরে জানানো হবে।’

Scroll to Top