১৮ এপ্রিল, ২০২৪
৫ বৈশাখ, ১৪৩১

মায়ের লাশ রান্নাঘরে, ছেলেরটা গাছে

পাবনা প্রতিনিধি : পাবনার চাটমোহরে লাবনী খাতুন (৩৫) নামে প্রবাসীর স্ত্রী ও তার শিশু ছেলে রিয়াদ হোসেনের (৮) মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

শুক্রবার (২৬ জানুয়ারি) বেলা সাড়ে ১১টার দিকে উপজেলার ফৈলজানা ইউনিয়নের দিঘুলিয়া গ্রাম থেকে মা-ছেলের মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ। নিহত লাবনী খাতুনের স্বামী আব্দুর রশিদ মালয়েশিয়ায় থাকেন।

চাটমোহর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সেলিম রেজা জানান, বৃহস্পতিবার রাতের কোনো এক সময় তাদের খুন করা হয়েছে। এ ঘটনায় নিহতের ভাতিজা শাহীনকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য পুলিশ আটক করেছে। এ বিষয়ে পরে বিস্তারিত জানানো হবে।

তিনি জানান, ৩৫ বছর বয়সি লাবনী খাতুনের মরদেহ রান্নাঘরে পড়ে ছিল আর তার সন্তান আট বছরের রিয়াদ হোসেনের মরদেহ বাড়ির পাশে একটি গাছে ঝুলন্ত অবস্থায় ছিল।

স্থানীয়রা জানান, বৃহস্পতিবার গভীর রাতে কয়েকজন মুখোশ পরিহিত দুর্বৃত্ত ওই প্রবাসীর বাড়িতে এসে ঘরবাড়িতে ভাঙচুর চালায়। এসময় বাড়িতে থাকা মা ও ছেলে চিৎকার দিলে দুর্বৃত্তরা তাদের শ্বাসরোধ করে হত্যা করে পালিয়ে যায়। পরে স্থানীয়রা থানায় খবর দিলে শুক্রবার সকালে পুলিশ মা ও ছেলের মরদেহ উদ্ধার করে।

ফৈলজানা ইউপি চেয়ারম্যান হাফিজুর রহমান বলেন, সকালে মরদেহ দেখে পুলিশে খবর দেওয়া হয়। এমনিতে কারও সঙ্গে তাদের শত্রুতা ছিল না বলে জেনেছি।

Scroll to Top