২৩ জুলাই, ২০২৪
৮ শ্রাবণ, ১৪৩১
Mirror Times BD

গাজার শিশুদের মধ্যে ছড়িয়ে পড়েছে ভয়ংকর চর্মরোগ

মিরর ডেস্ক : গাজার শিশুদের মধ্যে ছড়িয়ে পড়েছে বিপজ্জনক চর্মরোগ। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার মতে, গত ৭ অক্টোবর ইসরায়েল-হামাস যুদ্ধ শুরু হওয়ার পর থেকে বাস্তুচ্যুত গাজাবাসীকে এমন খারাপ পরিস্থিতিতে থাকার জন্য বাধ্য করা হয়েছে। এই ভূখণ্ডের দেড় লাখেরও বেশি মানুষ চর্মরোগে আক্রান্ত হয়েছে।

ওয়াফা এলওয়ানের পাঁচ বছর বয়সী ছেলে বিপজ্জনক চর্মরোগের কারণে ঘুমাতে পারছেনা। সেখানে তাঁবুতে সে এবং তার সাত সন্তান আশ্রয় নিয়েছে। তার মা বলেন, ‘আমার ছেলে সারারাত ঘুমাতে পারে না কারণ, তার শরীরের চর্মরোগের কারণে চুলকাচ্ছে’ ছেলেটির পায়ে এবং পায়ের পাতায় টি-শার্টের নিচে সাদা এবং লাল ফুসকুড়ি এবং স্ক্যাবিস থেকে চিকেন পক্স, উকুন, ইমপেটিগো এবং অন্যান্য ফুসকুড়িতে ত্বকের সংক্রমণে ভুগছেন এমন অনেক গাজাবাসীর মধ্যে তিনি একজন।

তার পরিবার মধ্য গাজার শহর দেইর আল-বালাহে সমুদ্রের কাছে একটি বালুকাময় স্থানে বসবাসকারী হাজার হাজারের মধ্যে একজন। সংক্রমণ অনিবার্য বলে মনে করেন এলওয়ান।

এলওয়ান বলেছেন, ‘আমরা মাটিতে, বালিতে ঘুমাই যেখানে আমাদের নীচে কীট বেরিয়ে আসে’। আমরা আগের মতো আমাদের বাচ্চাদের গোসল করাতে পারছি না। জায়গাটি ধোয়া ও পরিষ্কার করার জন্য আমাদের জন্য কোনো স্বাস্থ্যবিধি এবং স্যানিটারি পণ্য নেই। কিছুই নেই।’

তিনি বলেন, ‘সমুদ্র পুরোটাই নর্দমা। তারা এমনকি আবর্জনা এবং শিশুর ন্যাপকিনও সমুদ্রে ফেলে।’

জার্মানি সংবাদ মাধ্যম ডয়চেভেলে গাজায় যুদ্ধ শুরু হওয়ার পর থেকে ৯৬ হাজার ৪১৭ টি স্ক্যাবিস এবং উকুন, চিকেন পক্সের ৯ হাজার ২৭৪টি, ত্বকে ফুসকুড়ির ৬০ হাজার ১৩০টি এবং ইমপেটিগোর ১০ হাজার ০৩৮টি সংক্রমণের রিপোর্ট করেছে। দেইর আল-বালাহ ক্যাম্পে একটি অস্থায়ী ক্লিনিক পরিচালনাকারী ফার্মাসিস্ট সামি হামিদের মতে, স্ক্যাবিস এবং চিকেন পক্স উপকূলীয় ফিলিস্তিনি অঞ্চলে ব্যাপক আকারে ছড়িয়ে পড়েছে।

ডক্টরস উইদাউট বর্ডারস (এমএসএফ) এর গাজার মেডিকেল কো-অর্ডিনেটর মোহাম্মদ আবু মুগাইসিব এএফপি’কে বলেছেন, শিশুরা ঝুঁকিপূর্ণ পরিস্থিতিতে বসবাস করছে। কারণ, ‘তারা শিশু, বাইরে খেলছে, যে কোনও কিছু স্পর্শ করবে, না ধুয়ে অনেক কিছু খাবে।’

আবু মুগাইসিব বলেন, গরম আবহাওয়া ঘাম বাড়ায় এবং ময়লা জমে যা ফুসকুড়ি এবং অ্যালার্জির কারণ। ঘামাচির হলে সংক্রমণ হয়। তিনি বলেছেন ‘মানুষ আর ঘরে থাকে না, সঠিক স্বাস্থ্যবিধি নেই’।

এমএসএফ ডাক্তাররা লেশম্যানিয়াসিসের মতো অন্যান্য ত্বকের অবস্থার আবির্ভাবকে ভয় পান, যা সবচেয়ে মারাত্মক আকার হতে পারে।

⠀শেয়ার করুন

loader-image
Dinājpur, BD
জুলা ২৩, ২০২৪
temperature icon 32°C
overcast clouds
Humidity 68 %
Pressure 998 mb
Wind 15 mph
Wind Gust Wind Gust: 17 mph
Clouds Clouds: 98%
Visibility Visibility: 0 km
Sunrise Sunrise: 05:27
Sunset Sunset: 18:56

⠀আরও দেখুন

Scroll to Top